সান্তাহার জংশন

করোনায় নীরব সান্তাহার জংশন

সান্তাহার ডেস্ক :: করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে বন্ধ সান্তাহার রেলওয়ে জংশন থেকে চলাচল করা সব ধরনের ট্রেন। এ ছাড়া খাবার হোটেল, রেস্তোঁরা, চায়ের দোকান, আবাসিক হোটেল, ছোট-বড় অনেক যানবাহন এবং বন্ধ রাখা হয়েছে হাট ও এনজিওর কিস্তি আদায়।

গত বুধবার থেকে জরুরি প্রয়োজন ছাড়া কেউ ঘরের বাইরে বের হচ্ছেন না। উপজেলা সদর, সান্তাহার পৌর শহর, ছাতিয়ানগ্রাম বাজার, মুরইল, নশরতপুরসহ বেশ কয়েকটি এলাকায় দেখা যায় মুদি, কাঁচা বাজার, ফলের দোকান ও ফার্মেসি/ওষুধের দোকান ছাড়া সব ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখা হয়েছে। কোথাও নেই কোনো গণজমায়েত। করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব প্রতিরোধে গত ২৩ মার্চ জেলা প্রশাসকের স্বাক্ষরিত এক জরুরি বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে উল্লেখিত বিষয়গুলো মেনে চলতে নির্দেশনা প্রদান করা হয়। সে মোতাবেক উপজেলা প্রশাসন গত মঙ্গলবার সন্ধ্যা থেকেই এসব মেনে চলতে ব্যাপক প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন।

সান্তাহার রেলওয়ে জংশন স্টেশনে নেই মানুষের ভীড়। কেউ ট্রেনের জন্য এখন আর অপেক্ষা করে না। টিকিট কাউন্টারও বন্ধ। রেল স্টেশনের দোকানগুলোও বন্ধ। ভাসমান মানুষরা যারা স্টেশনে থাকতেন তারাও নেই। ট্রেন না আসা যাওয়া করার কারণে এখন নীবর সান্তাহার জংশন স্টেশন। আর আগে কখনো এমন দৃশ্য দেখা যায়নি স্টেশনে।

আদমদীঘি উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) এ কে এম আব্দুল্লাহ্ বিন রশিদ জানান, সান্তাহার এবং আদমদীঘি উপজেলায় সব ধরনের সভা-সমাবেশ ও জনসমাগম নিষিদ্ধ করা হয়েছে এবং সবাইকে নিজ নিজ ঘরে অবস্থান করার জন্য বলা হয়েছে। কেউ আইন অমান্য করলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সান্তাহার ডটকম/৩০ মার্চ ২০২০ইং/ইএন

About the author

Santahar Team

Add Comment

Click here to post a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *