দৈনিক সান্তাহার

চালকদের নেই কোনো ড্রাইভিং লাইসেন্স

autoriksha santahar

সান্তাহার পৌর শহরসহ বিভিন্ন রাস্তায় নিয়ন্ত্রণহীনভাবে চলাচল করছে ব্যাটারি চালিত ভটভটি (নছিমন) অটোরিক্সা-ইজিবাইক ।
এসব যানবাহনের অধিকাংশ চালকের নেই বৈধ কাগজপত্র, নেই লাইসেন্স। অপ্রাপ্ত বয়স্ক ও লাইসেন্সবিহীন চালকের কারণে হচ্ছে যানজটের সৃষ্টি ও অহরহ ঘটছে দুর্ঘটনা। হারিয়ে যাচ্ছে অকালে প্রাণ, হচ্ছে অনেকেই পঙ্গু। আইন প্রয়োগকারী সংস্থার নজরদারি না থাকায় এর প্রবনতা ক্রমেই বৃদ্ধি পাচ্ছে।
জানা যায়, সান্তাহার, ছাতনী ঢেকড়া, আদমদীঘি-ছাতিয়ানগ্রাম, মুরইল-রাইকালী, নসরতপুর-কড়ই বিহিগ্রাম, জিনইর-কাশিমালকুড়ি, চৌমুহনী-চাঁপাপুরসহ বিভিন্ন রাস্তায় প্রায় ৮ শতাধিকের অধিক সিএনজি, ব্যাটারি চালিত অটোরিক্সা, ইজিবাইক, ভটভটি ও অটোটেম্পু চলাচল করছে।
অনুসন্ধানে দেখা গেছে, অধিকাংশ সিএনজি, অটোটেম্পু, ব্যাটারি চালিত অটোরিক্সা, ইজিবাইকের চালকরা অপ্রাপ্ত বয়স্ক ও অধিকাংশ চালকের ড্রাইভিং লাইসেন্স নেই এবং এসব রুটে চলাচলকারী যানবাহনের অনেকেরই কোন বৈধ লাইসেন্স বা কাগজপত্র নেই। সমিতির দেয়া যানবাহনের মালিকানা ও চালকের পরিচয়পত্র সংক্রান্ত কাগজ দিয়ে চালানো হচ্ছে যানবাহন। নিয়ন্ত্রনহীনভাবে চলাচল করার ফলে একদিকে যেমন রাস্তায় যানজটের সৃস্টি হচ্ছে, তেমনি প্রায় দিনই ঘটছে দুর্ঘটনা। দুর্ঘটনায় অকালে অনেক যাত্রীকে দিতে হচ্ছে প্রাণ। আবার অনেকেই বরণ করতে হচ্ছে পঙ্গুত্ব। বেপরোয়া ভাবে চালানো এসব যানবাহনে বাধ্য হয়েই যাতায়াত করতে হচ্ছে যাত্রী সাধারনদের। পুলিশ মাঝে মধ্যে কিছু যানবাহন তল্লাশী করলেও আবারও তারা একই কায়দায় নিয়ন্ত্রনহীনভাবে চালিয়ে যাচ্ছে সিএনজি ও ব্যাটারি চালিত ইজিবাইক, অটোরিক্সা টেম্পু ও ভটভটি।
আদমদীঘি থানার ওসি শওকত কবির জানান, এসব যানবাহন নিয়ন্ত্রণ করতে আইনগত ব্যবস্থা চলমান রয়েছে।
সান্তাহার ডটকম/ইএন- ২০ জুলাই ২০১৬ইং

About the author

Santahar Team

Add Comment

Click here to post a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *