দৈনিক সান্তাহার

সাবধান! সান্তাহারে নকল ঘি

Santahar News 3সান্তাহার ডেস্ক:: সান্তাহার শহরসহ আশপাশের বাজারে নকল ঘি তৈরি এবং অবাধে বাজারজাত করা হচ্ছে। এসব নকল ঘি কিনে অনেক ক্রেতা প্রতারিত হচ্ছেন আবার এসব ঘি খেয়ে অনেকেই পেটের নানা অসুখে ভুগছেন। এলাকায় নকল ঘি উদ্ধারে অভিযান না থাকায় এর প্রসার দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।
জানা যায়, সান্তাহার পৌরশহর, নতুন বাজার, হাটখোলা, কুসুম্বী, তিলোচ, নিমকুড়ি, বশিকোড়া এলাকাসহ প্রায় ১৫টি বাসা বাড়িতে নকল ঘি তৈরির কারখানা রয়েছে। এসব কারখানায় সপ্তাহে ৫০/৬০ মণ নকল ঘি তৈরি করে বাজারজাত করা হয়। নাম প্রকাশ না করার শর্তে নকল ঘি তৈরি কারখানার এক কারিগর জানান, নকল ঘি তৈরিতে পরিমাণ মতো ডালডা, পামওয়েল ও লটকনের বিচি বেটে মিশিয়ে আগুনে জাল দিয়ে নকল ঘি তৈরি করে তার সাথে কিছু পরিমাণ আসল ঘি মিশিয়ে বাজারজাত করা হয়ে থাকে। সূত্রমতে, এই নকল ঘি শুধু গ্রামাঞ্চলেই নয়, আদমদীঘি সদর ও সান্তাহার পৌর শহর থেকে প্রায় প্রতিদিন ট্রেন ও বাসযোগে বগুড়া শহর, শেরপুর, নওগাঁ জয়পুরহাট ও ঢাকাসহ দেশের বিভিন্নস্থানে হোটেল রেস্তোরাঁ ও বাড়ি বাড়ি ফেরি করে অবাধে বিক্রি করা হয়ে থাকে। নকল ঘি দিয়ে তৈরি সেমাইসহ অন্যান্য সামগ্রী খেয়ে অনেকেই পেটের নানা অসুখে ভুগছে। নকল ঘি প্রতিরোধে দেশের বিভিন্নস্থানে অভিযান চললেও আদমদীঘি সান্তাহার পৌর শহর এলাকায় এখনও কোনো অভিযান হয়নি। ফলে তারা বহাল তবিয়তে নকল ঘি তৈরি অব্যাহত রেখেছেন। সান্তাহারের জনৈক ঘি ব্যবসায়ী জানান, পাবনা থেকে ঘি নিয়ে এসে তারা বগুড়াসহ বিভিন্ন শহরে বড় বড় হোটেল রেস্তোরাঁয় সরবরাহ করে থাকে। তবে নিজে ঘি তৈরি করেননা। নকল ঘি প্রতিরোধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা প্রয়োজন বলে অভিজ্ঞ মহল মনে করেন।

>> সান্তাহার ডটকম/ইএন/২০ জুন ২০১৭ইং

About the author

Santahar Team

Add Comment

Click here to post a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *